বিরাটদের কোচ হতে পারেন রিকি পন্টিং

সৌরভ গাঙ্গুলি বনাম রিকি পন্টিং। এই দুইয়ের দ্বৈরথ বললেই চোখের সামনে ভেসে ওঠে ২০০৩ সালের বিশ্বকাপ ফাইনালের কথা। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে সেই দ্বৈরথ এখন অন্য কক্ষপথে। সুখের সংসারে পরিবর্তিত হয়েছে দুই প্রাক্তন অধিনায়কের দ্বৈরথ। সৌরভ-পন্টিং যুগলবন্দিতে এবারের আইপিএলে ফুল ফোটাচ্ছে দিল্লি ফ্র্যাঞ্চাইজি। কোচ পন্টিং আর মেন্টর সৌরভ জুটির মস্তিষ্ক ইতিমধ্যেই আইপিএলের প্লে-অফে পৌঁছে দিয়েছে দিল্লিকে।

চেন্নাইয়ের বিরুদ্ধে মাঠে নামার আগে এক অনুষ্ঠানে দিল্লির মেন্টর সৌরভকে প্রশ্ন করা হয়, একসময়ের প্রতিদ্বন্দ্বী অজি অধিনায়ক রিকি পন্টিংয়ের সঙ্গে তাঁর কাজ করার অভিজ্ঞতা কেমন? উত্তরে সৌরভ বলেন, “আমরা দুজনে দারুন বন্ধু। একটা সময় ছিল যখন বাইশ গজে আমরা একে অপরের প্রতিপক্ষ ছিলাম। কিন্তু কয়েক বছরে সেটাই বন্ধুত্বে বদলে গিয়েছে। প্রচুর পরিশ্রম করে দিল্লি দলকে কিন্তু ও দাঁড় করিয়ে দিয়েছে।”

মহারাজের মুখে পন্টিংয়ের প্রশংসা শুনে ভেসে আসে এই প্রশ্ন, আপনি কী মনে করেন পন্টিং ভারতের কোচ হতে পারেন? এবার মহারাজ বলেন,” এই প্রশ্নটা আপনাদের তাঁকেই জিজ্ঞাসা করতে হবে। আর যদি ৮ থেকে ৯ মাস দেশের বাইরে থাকার জন্য মানসিকভাবে প্রস্তুত থাকে। আর যদি যোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন করেন তাহলে ভারতের কোচ হওয়ার জন্য অন্যতম যোগ্য প্রার্থী পন্টিং, এনিয়ে কোনও সন্দেহের অবকাশ নেই।”